তথ্যচিত্র ’রবি শিশু’

গ্যালারী নিউজ হাইলাইট

এটিএন বাংলা ডেস্ক:

ফ্যাশন জগতে পাদুকা শিল্প একটি অপরিহার্য অংশ। আর এই পাদুকা শিল্পী বিভিন্ন ব্র্যান্ডে সারা দুনিয়া দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। কিন্তুু এই শিল্পীকে শত শত বছর ধরে যারা বাচিয়ে রেখেছে, তারা হলো রবিদাস। জাতিগত ভাবেই রবিদাসরা এই শিল্পকে বংশ পরম্পরায় ধারন করে রেখেছে। বহুজাতির এই ভূখণ্ডের প্রাচীন জাতিগোষ্ঠীগুলোর মধ্যে রবিদাস অন্যতম। বাংলাদেশে বিভিন্ন জেলায় ছড়িয়ে রয়েছে প্রায় ৭লক্ষ রবিদাস। কিন্তু চিরকাল এদের নাম রবিদাস ছিল না। যে জাতি থেকে রবিদাসদের উদ্ভব তারা হলো চামার। রবিদাসরা সূর্যপূজারী। এদের রয়েছে নিজস্ব ভাষা, হরফ ও সংস্কৃতি। এদের রয়েছে মন্দির, আবার এরা মৃতদেহ সৎকার করে কবর দিয়ে।

রবিদাসরা এই বাংলার আদি সন্তান হলেও, জুতো তৈরী করার দায়ে নীচু জাত হিসেবে সমাজে নিগৃহীত হতে হয় তাদেরকে। এই গোত্রের শিশুদের কে অস্পৃশ্য বলা হয়। তাই পড়াশোনাসহ সব ধরনের সুযোগ সুবিধা থেকে বঞ্চিত হয় এরা। অথচ এই শিশুরাই তাদের সংস্কৃতি ও ঐতিহ্যকে বহন করে যাচ্ছে। রবিদাসদের শিশুরা হচ্ছে রবিশিশু। রবি শিশুদের জীবনী নিয়ে এটিএন বাংলায় আজ (৬ ডিসেম্বর) রাত ৮টা ৪০মিনিটে প্রচার হবে মালিহা ওয়াদুদ চাঁদনীর পরিচালনায় তথ্যচিত্র ‘রবিশিশু’। মূলত রবি শিশুদের প্রতি সমাজের দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন ও এসব শিশুদের সুনিশ্চিত ভবিষ্যতের স্বপ্ন বাস্তবে রূপদানের লক্ষ্যেই তৈরি হয়েছে অনুষ্ঠানটি।